তবে কি ভার্চুয়াল জগতেই সীমাবদ্ধ খেলা থেকে শিক্ষা !

Editorial's Article Others

সায়ন্তন টাট , জাঙ্গিপাড়া :  টেনিদা বা ফেলুদার ব‌ইয়ের বদলে ওয়েব সিরিজ আর কবাডি বা ফুটবলের বদলে পাবজি এবং ফ্রী ফায়ার- এই পরিবর্তন হলো লকডাউন পরবর্তী নিউ নরমাল জীবনের প্রতিচ্ছবি । বলা বাহুল্য , বাস্তব জীবনকে রাহুর মতো গ্রাস করছে ডিজিটাল লাইফ অথচ সেই দিকে অভিভাবকদের প্রায় কোনও ভ্রুক্ষেপই নেই । কারণ তারাও যে একই পথের পথিক । এখন অনেকটা সময় সকলে একই ছাদের তলায় কাটাবার সুযোগ পেলেও , পারিবারিক আড্ডার পরিবর্তে ভার্চুয়াল জগতের অন্য এক অপরিচিত মানুষের সাথে আড্ডা জমাতেই মত্ত মানুষ । বিছানা বা খাবার ঘর তো কোন ছার , এমনকি স্নানঘরেও মুঠোফোনে আবদ্ধ মানুষ । কিছুদিন আগে যে খেলাধুলা , শিক্ষা তথা বিনোদন বাস্তব জীবনের অংশ ছিল তা আজ ভার্চুয়াল জীবনের অবিচ্ছেদ্য অংশে পরিণত হয়েছে । কিন্তু কঠিন সত্য যে , এই ডিজিটাল জীবনের প্রতি অত্যাধিক নির্ভরতা ডেকে আনছে ভয়ানক সর্বনাশের বার্তা । উইকিপিডিয়া তথ্য অনুযায়ী , সমগ্র ইন্টারনেট ব্যবহারকারীদের মধ্যে ১০-১২ শতাংশ মানুষ আজ বহির্বিমুখতা , দুশ্চিন্তা , কল্পনা মগ্নতা এমনকি অ্যাটেনশন ঘাটতির উদ্বেগে ভুগছেন । এছাড়াও মানসিক বা শারীরিক স্বাস্থ্যহানির সম্ভাবনা তো রয়েছেই ।
সুতরাং , নিজেদের স্বাস্থ্যের কথা ভেবেই তাদেরকে ডিজিটাল এবং বাস্তব জীবনের মধ্যে ভারসাম্য গড়ে তুলতে হবে । ডিজিটাল লাইফ এর জন্য নির্দিষ্ট সময় এবং ডিজিটাল স্পেস তৈরি করতে হবে । আরে এই ভারসাম্যের রেখা টানতে হবে নিজেদেরকেই নচেৎ নেশা মুক্তি কেন্দ্রের তালিকায় ডিজিটাল নেশা মুক্তি ও যোগ হবে ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *